আইসিটি আইনের মামলা দীপ্ত টিভির পরিচালকসহ তিনজন কারাগারে

ঢাকা অফিস : বেসরকারি টেলিভিশন দীপ্ত টেলিভিশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালকসহ চারজনের বিরুদ্ধে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনের ৫৭ ধারায় দায়ের করা মামলায় তিনজনকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

গতকাল সোমবার চট্টগ্রামের বিভাগীয় সাইবার ট্রাইবুন্যালের বিচারক জহিরুল কবির এই আদেশ দিয়েছেন। শুরুতে চারজনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেওয়া হলেও বিকেলে অসুস্থার কারণ বিবেচনায় ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী জাহেদুল হাসানের জামিন মঞ্জুর করেন আদালত। বাকি তিনজনকে কারাগারে পাঠানো হয়।

কারাগারে যাওয়া তিনজন হলেন দীপ্ত টেলিভিশনের পরিচালক কাজী জাহিন হাসান, চিফ অপারেটিং অফিসার কাজী উরফি আহমেদ ও কাজী রাবেত হাসান প্রকাশ কাজী জিসান।

তিনজন কারাগারে যাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সাইবার ট্রাইবুন্যালের পাবলিক প্রসিকিউটর মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী। তিনি বলেন, আসামিদের বিরুদ্ধে চকবাজার ও চান্দগাঁও থানায় তিনটি মামলা দায়ের করা হয়। এসব মামলায় আসামিরা আত্মসর্পণ করে জামিন আবেদন করেন।

শুনানির পর আদালত চারজনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। তবে পরে এক আসামির অসুস্থতার তথ্য উল্লেখ করে আদালতে আবেদন করা হলে আদালত সেটি মঞ্জুর করেন। বাকি তিন আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়। কারাগারে যাওয়া আসামিদের জামিন চেয়ে আদালতে আবেদন জমা দিয়েছেন আসামিপক্ষের আইনজীবী। মঙ্গলবার জামিন শুনানি হতে পারে।

আদালত থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী, চট্টগ্রামের চন্দনাইশ থানার দোহাজারী কাজী ফার্মস লিমিটেডের কর্মীর ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছিল ২০১৬ সালে। সেই ঘটনায় তৎকালীন প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী নূরুল ইসলাম বিএসসির মালিনাকাধীন প্রতিষ্ঠান সানোয়ারা গ্রুপের পোল্ট্রি, হ্যাচারি ও মন্ত্রীপুত্র মজিবুর রহমানকে নিয়ে মানহানিকর সংবাদ পরিবেশন করে দীপ্ত টেলিভিশন।

এই অভিযোগে নগরীর দুই থানায় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় তিনটি মামলা হয়। এসব মামলায় তিনজনকে কারাগারে পাঠালেন আদালত।

 

একই রকম খবর