শাহমাহমুদপুর ইউপি সচিব রোকনের বদলীর আদেশ স্থগিতের দাবি

চাঁদপুর খবর রিপোর্ট : চাঁদপুর সদর উপজেলার ৪নং শাহমাহমুদপুর ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকনের বদলীর আদেশ স্থগিতের দাবি জানিয়েছে অত্র ইউনিয়ন চেয়ারম্যান স্বপন মাহমুদসহ পরিষদের সদস্যবৃন্দ।

ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনগণও একেই দাবি জানিয়েছেন। মিডিয়ার মাধ্যমে জনবান্ধব ও ইনোভেশন চাঁদপুর জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান খানের নিকট এ দাবি জানান।

জানা গেছে, গত ৮ নভেম্বর ২০১৮ খ্রি: চাঁদপুরের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ শওকত ওসমানের স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশ স্বারক নং ৭০৭(১৫) মূলে ৪নং শাহমাহমুদপুর পরিষদের ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকনকে হঠাৎ করে হানারচর ইউনিয়ন পরিষদে বদলি করে। যদিও জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর নির্বাচন কমিশনারের অনুমতি ছাড়া কোন কর্মকর্তা-কর্মচারীকে বদলীর করার বিধান নেই।

গত ১৮ নভেম্বর চাঁদপুর জেলা উন্নয়ন সমন্বয় সভায় খোদ চাঁদপুর জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর মান খান নির্বাচনের আগে কর্মকর্তা-কর্মচারী বদলী করা যাবে না মর্মে বক্তব্য দিয়েছেন। বিষয়টি স্থানীয় পত্রিকাগুলোর শীর্ষ সংবাদে প্রচারিত হয়েছে। তারপরও ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকনের বদলী নিয়ে হতবাক ইউনিয়নবাসী।

ইউনিয়নের দীর্ঘদিন সচিব পদটি শুন্য ছিলো। যার কারণে গুরুত্বপুর্ন এ ইউনিয়নের জনগণ নাগরিক সেবা থেকে বঞ্চিত হয়েছিলো। ফলে জেলা প্রশাসনের কছে আবেদন-নিবেদন ও দাবির প্রেক্ষিতে কিছুদিন আগে বালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ থেকে ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকনকে ৪নং শাহমাহমুদপুর পরিষদে বদলী করে আনা হয়েছে।

সচিব রোকন ৪নং শাহমাহমুদপুর পরিষদে যোগদানের পর মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল বাংলাদেশ বির্নিমাণে অত্র ইউনিয়ন পরিষদকে চেয়ারম্যান স্বপন মাহমুদ ও পরিষদের সহযোগিতায় খুব অল্প সময়ে আইসিটিতে ব্যাপক কাজ করেছেন। প্রায় সকল নাগরিক সেবা অনলাইনে আনতে সক্ষম হয়েছেন। ইউনিয়ন পরিষদ থেকে জনগণ সুফল পেতে শুরু করেছে।

বাল্য বিবাহ রোধে সাহসী ভুমিকা রেখেছেন। একের পর এক জনবান্ধব কাজের ফলে ইউনিয়নে জনগণের কাছে আস্থা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন। তাই চাঁদপুর জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান খান মহোদয়ের নিকট ৪নং শাহমাহমুদপুর পরিষদের ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকনের বদলীর আদেশ স্থগিতের দাবি জানিয়েছে অত্র ইউনিয়ন চেয়ারম্যান স্বপন মাহমুদসহ পরিষদের সদস্যবৃন্দ ও ইউনিয়নবাসী।

এ ব্যাপারে ৪নং শাহমাহমুদপুর পরিষদের চেয়ারম্যান স্বপন মাহমুদ জানান, ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকন একজন দক্ষ ও কর্মঠ্য। তার কাজকর্মে আমরা খুশী। তথাপি বেশীদিন হয়নি তিনি এ ইউনিয়নে এসেছেন। আমার অনুরোধ থাকবে জাতীয় সংসদ নির্বাচন পর্যন্ত অন্তত: তার বদলীর আদেশটি যাতে স্থগিত করা হয় ।

এব্যাপারে চাঁদপুর সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কানিজ ফাতেমা জানান, ৪নং শাহমাহমুদপুর ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি সচিব মোহাম্মদ কুদ্দুস আখন্দ রোকন একজন দক্ষ সচিব। উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন ইনোভেশন কাজে তার যথেষ্ট ভূমিকা রয়েছে।

একই রকম খবর

Leave a Comment