এডিসিকে চাঁদপুর জেলা ক্রীড়া সংস্থার বিদায় সংবর্ধনা

চাঁদপুর খবর রির্পোট : চাঁদপুর জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক (উপসচিব) ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এবং চাঁদপুর জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মাহমুদ জামানকে বিদায় সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার (২২ জুন) বিকালে চাঁদপুর স্টেডিয়ামে এ বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

সংবর্ধিত অতিথির বক্তব্যে মোহাম্মদ আবদুল্লাহ আল মাহমুদ জামান বলেন, চাঁদপুরে আমি প্রায় ৩বছর ২মাস। আসলে আমরা যে পদে কাজ করে, সে পদ থেকে বাইরে এসে কাজ করা কঠিন কাজ। ছকের বাইরে কাজ করতে গিয়ে চাঁদপুরবাসীর মনে ডুকে গিয়েছিলাম। সেক্ষেত্রে আমার চাঁদপুরে চাকরিজীবনে ২জন জেলা প্রশাসকের সহায়তা ছিলো অনেক। তার জন্যে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। আমি চেষ্টা করেছি চাঁদপুরবাসীর সেবা করা।

তিনি আরো বলেন, করোনাকালীন সময়ে শুধু আমি নই, আমার সাথে আমার স্বেচ্ছাসেবকরাও তাদের জীবন বাজি রেখে মানুষের সেবার করার জন্যে কাজ করেছে। চাকুরির ৯-৫টা কাজ করে হয়তো ভালো অফিসার হতে পারবেন কিন্তু রুটিন সময়ের কাজ থেকে বেরিয়ে কাজ করলে সাধারণ মানুষের মনের মাঝে প্রবেশ করতে পারবেন। চাঁদপুরের সাথে আমার সম্পর্কে ছিন্ন হচ্ছে না। চাঁদপুরের সাথে আমার সম্পর্কে সবসময়ই থাকবে। চাঁদপুরের জন্যে কেউ আমাকে ফোন করে কিছু বলা লাগবে না।

চাঁদপুর জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক গোলাম মোস্তফা বাবু’র সঞ্চালনায় অনুভূতি ব্যক্ত করেন, কোষাধ্যক্ষ সম্পাদক সুভাষ রায়, ফুটবল উপকমিটির সম্পাদক শাহির হোসেন পাটওয়ারী, কার্যনির্বাহী সদস্য আবু নাছের পাটোয়ারী বাচ্চু, বিষ্ণুদী ক্লাবের সভাপতি সেলিম আকবর প্রমূখ।

অনুষ্ঠানে বক্তারা অনুভূতি প্রকাশ করে বলেন, উনি আমাদের কিছু শিক্ষা দিয়ে গেছেন, তা হলো ভালো করার জন্যে নিজ থেকে কিছু করা। বিপদের সময় যে পাশে থাকে তিনিই হচ্ছে প্রকৃত বন্ধু। তিনি হচ্ছেন সেই বন্ধু, যিনি চাঁদপুরের করোনাকালীন সময়ে সাধারণ মানুষের পাশে ছিলেন। তিনি চাকুরি জীবনে সমাজসেবক হয়ে মানুষের পাশে ছিলেন। চাঁদপুরের জন্যে উনার অবদান ভুলার মত নয়। চাঁদপুরকে যেমনি তিনি আপন করে নিয়েছেন ঠিক তেমনিই চাঁদপুরবাসীও তাঁকে আপন করে নিয়েছেন।

এসময় চাঁদপুর জেলা ক্রীড়া সংস্থাসহ, ফুটবল, ক্রিকেট, টেনিসসহ,বাস্কেটবলসহ বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা বিদায়ী অতিথিকে ফুলেল শুভেচ্ছা ও সম্মাননা স্মারক প্রদান করা হয়।
অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তিলাওয়াত করেন আলহাজ্ব মোঃ সিরাজুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে শেষে ক্রিকেটের ব্যাট উঠিয়ে সম্মাননা প্রদান করা হয় অনুষ্ঠানের সংবর্ধিত অতিথিকে।

একই রকম খবর