চাঁদপুরে শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা দিতে এসে সড়কে প্রাণ গেলো ২ পরীক্ষার্থীর

সাইদ হোসেন অপু চৌধুরী/মাসুদ হোসেন : চাঁদপুরে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা দিতে যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল দুই পরীক্ষার্থীর। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো ৩ জন। শুক্রবার (২০ মে) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কের ঘোষেরহাট মিয়ার বাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, ইট ও সিমেন্টবাহী হাইড্রোলিক পিকআপ ও সিএনজি স্কুটারের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই এক নারী পরীক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় মারাত্মক আহত হওয়া আরেক পুরুষ যাত্রী হাসাপাতালে নেয়ার পথেই তার মৃত্যু হয়। এছাড়াও বাকী যাত্রীদের অবস্থাও খারাপ।

ঘটনাস্থলে নিহত যাত্রী হাজীগঞ্জ উপজেলার বলাখালের বাসিন্দা মোঃ মাহবুবুল আলমের মেয়ে ফাতেমা আলম। তিনি চাঁদপুর আল আমিন স্কুল এন্ড কলেজ ক্যাম্পাসে প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য চাঁদপুর যাওয়ার পথেই এ দুর্ঘটনার শিকার হন। ধারনা করা হচ্ছে নিহত যাত্রীসহ অন্যান্য যাত্রীরাও প্রাথমিক নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য চাঁদপুর যাচ্ছিল।

অন্য নিহত পুরুষ যাত্রী একই উপজেলার সৈয়দপুর পাটওয়ারী বাড়ির মোঃ হোসেন পাটওয়ারীর একমাত্র পুত্র মোঃ আবদুল্লাহ পাটওয়ারী (২৭) তিনিও পরীক্ষা দেয়ার উদ্দেশ্যে চাঁদপুর যাচ্ছিল। আহতরা চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছে বলে হাসপাতালের জরুরি বিভাগ সূত্রে জানা যায়।

দুর্ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী হাবিবুর রহমান পলাশ জানান, প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় অংশ গ্রহনে চাঁদপুর যাওয়ার পথে আমার সামনের সিএনজি চালিত স্কুটারটির সাথে পূর্বমূখী ইট ও সিমেন্টবাহী পিকআপ ভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে নারী যাত্রী ঘটনাস্থলেই মারা যান। এছাড়া গুরুতর আসংখ্যাজনক পুরুষ যাত্রীকে হাসপাতালে নেয়ার পথে সেও মৃত্যুবরণ করেন।

সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে চাঁদপুর সদর মডেল থানা পুলিশ এসে নিহত ফাতেমার মরদেহ থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে। দুর্ঘটনায় দুমড়ে মুচড়ে যাওয়া ট্রাক ও অটোরিকশা ঘটনাস্থলে আছে। তবে চালকরা পলাতক রয়েছেন। অপর আহতরা হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা নিয়েছেন।

চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আব্দুর রশিদ দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। দুই চালক পলাতক রয়েছেন। দুর্ঘটনায় কবলিত অটোরিকশা এবং ট্রাক জব্দ করে থানায় নিয়ে আসা হয়। বিষয়টি তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

একই রকম খবর