নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা দিলেন মতলবের বিএনপি মেয়র প্রার্থী

চাঁদপুর খবর রিপোর্ট : চাঁদপুরের মতলব পৌরসভা নির্বাচনের ৬ দিন আগেই বর্জনের ঘোষণা দিলেন বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী এনামুল হক বাদল।

গতকাল ২২ ফেব্রুয়ারি সোমবার সকালে চাঁদপুর প্রেসক্লাবে সাংবাদ সম্মেলনে করে তিনি এই ঘোষণা দেন। লিখিত বক্তব্য মেয়র প্রার্থী এনামুল হক বাদল বলেন, আমি দল এবং দলের প্রতীকের প্রতি সম্মান রেখে অনেক বাধা থাকা সত্ত্বেও নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছি। কিন্তু নির্বাচনের প্রথম থেকেই নির্বাচন কমিশন ও প্রশাসন আমাকে অসহযোগিতা করে আসছে। তাছাড়া সরকার দলীয় অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা পৌরসভার প্রতিটি এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করেছে। প্রতিদিন দলীয় নেতাকর্মীদের হুমকি-ধমকি এবং নির্বাচনী কর্মকাণ্ডে বাধা প্রদানসহ নেতাকর্মীদের এলাকা ছাড়ার হুমকি প্রদান করছে।

তাছাড়া নির্বাচনের প্রচারণার প্রথম দিন থেকে আমার নির্বাচনী পোস্টার প্রকাশ্য ছিঁড়ে ফেলে আগুন ধড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। তিনি আরও বলেন, এ বিষয়ে আমি নির্বাচন কর্মকর্তা, রিটানিং অফিসার, প্রধান নির্বাচন কমিশনার বরাবার ১০টি অভিযোগ করার পরও কোন প্রতিকার পাইনি। নির্বাচনের প্রচাারণা করতে গিয়ে মুন্সিরহাট ও জাফরিয়া এলাকায় আওয়ামী লীগ ও যুবলীগের কর্মীরা হামলা চালায়।

উল্লেখিত বিষয়েও অভিযোগ করে কোন প্রতিকার পাইনি। তাই রিটানিং অফিসার ও প্রশাসনের অসহযোগিতা এবং সরকার দলীয় অব্যাহত হুমকি ধমকি, হামলা মামলায় জানমালের ক্ষয়ক্ষতি থেকে বিএনপি তথা ধানের শীষের কর্মী সমর্থকদের রক্ষা করার জন্য সিনিয়র নেতৃবৃন্দদের পরামর্শে এক তরফা প্রহসনের নির্বাচন বর্জন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি সোহেল রুশদীর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক রহিম বাদশার পরিচালনা সংবাদ সম্মেলনে বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্টনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ ।

এছাড়াও মতলব দক্ষিন উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সফিকুল ইসলাম সাগর,মতলব পৌর বিএনপির সভাপতি শোয়েব আহম্মদ সরকার,সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন ,সিনিয়র সহসভাপতি ডা:শোয়েব আহম্মদ ,মতলব পেীর যুবদলের সভাপতি মজিবুর রহমান সরকার,মতলব দক্ষিণ উপজেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক জহির হোসেন ,মতলব দক্ষি উপজেলা ছাত্রদলের আহবায়ক মিরাজ আহম্মদ সহ মতলব উপজেলা বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, আসন্ন মতলব পৌরসভা নির্বাচনে আমি বিএনপির মনোনীত মেয়র প্রার্থী এনামুল হক বাদল বর্তমানে উপজেলা বিএনপির সভাপতি। তিনি বিগত ৩ বার নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে ২ বার মতলব পৌবসভার মেয়র নির্বাচিন হন।

একই রকম খবর