মহামায়ায় উদ্ধার হওয়া কাভার্ড ভ্যান থেকে ৮ লক্ষাধিক টাকার চাল চিনতাই!

মাসুদ হোসেন : চাঁদপুর সদর উপজেলার মহামায়া পূর্ব বাজার থেকে ঢাকার শাফলা ফুডস লিমিটেডের মাদার কার্গো নামে একটি কাভার্ড ভ্যান উদ্ধার করেছে এলাকাবাসী। গাড়ির নাম্বার ঢাকা মেট্রো-ট ১৩-১৮৫২। গাড়ির ভিতরে থাকা চালক আঃ রহিম ও তার সহযোগী আবুল কালামকে গুরুতর আহত অবস্থায় পাওয়া যায়।

বুধবার (১৯ আগস্ট) সরেজমিনে গিয়ে ঘটনার বিবরনে জানা যায়, মঙ্গলবার (১৮ আগস্ট) দুপুর ১ টার সময় নওগাঁ থেকে ১৩ টন চাউল নিয়ে শাফলা ফুডস লিমিটেডের একটি কাভার্ড ভ্যান ঢাকার মিরপুর-১ নাম্বারে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে মেঘনা ব্রিজ এলাকায় একটি পিকআপ চাল বোঝাই কাভার্ড ভ্যানের সামনে এসে কাভার্ড ভ্যানটিকে থামিয়ে ৪ জনের একটি দল কার্গোর ভিতরে প্রবেশ করে।

এসময় কার্গোর চালক ও তার সহযোগীকে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে এবং নেশাজাত দ্রব্য খাবিয়ে অচেতন করে ২৫০ বস্তা চাউল চিনতাই করে নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। সঙ্গবদ্ধ দলের ঐ সদস্যরা কাভার্ড ভ্যানটিকে চালিয়ে চাঁদপুর সদর উপজেলার মহামায়া পূর্ব বাজার চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কের দক্ষিণ পার্শ্বে এনে রেখে যায়।

উপরোক্ত এসব বিষয় এ প্রতিবেদককে নিশ্চিত করেছেন শাফলা ফুডস লিমিটেডের কুমিল্লা অঞ্চলের মার্কেটিং অফিসার মোঃ মনির হোসেন।

তিনি জানান, আজ বুধবার দুপুরের দিকে কোম্পানির প্রধান কার্যালয় ঢাকা থেকে ফোন করে বিষয়টি আমাকে জানালে আমি তাৎক্ষণিক চাঁদপুর সদর হাসপাতালে গিয়ে চালক ও তার সহযোগীকে শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন দেখতে পাই। সেই সাথে সহযোগী কিছুটা কথা বলতে পারলেও চালক এখনো অজ্ঞান অবস্থায় চাঁদপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এদিকে বুধবার মহামায়া পূর্ব বাজারে সকাল সাড়ে ৭টার দিকে কাভার্ড ভ্যানটি রাস্তার পার্শ্বে পড়ে থাকতে দেখে এবং ভিতরে অজ্ঞান অবস্থায় চালক ও তার সহযোগীকে দেখতে পেয়ে এলাকাবাসী তাদেরকে উদ্ধার করে চাঁদপুর সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। খবর পেয়ে মহামায়া হাজী এন্টারপ্রাইজ এন্ড ট্রান্সপোর্ট এজেন্সির পরিচালক শেখ ফরিদ মিন্টু এসে চাঁদপুর সদর মডেল থানায় খবর দেন।

তিনি জানান, চালকের সহযোগির কাছ থেকে তার স্ত্রীর নাম্বার নিয়ে যোগাযোগ করে অন্যান্যদের অবগত করি। এ বিষয়ে চাঁদপুর সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ নাসিম উদ্দিন বুধবার বিকেলে দৈনিক চাঁদপুর খবরকে বলেন, আমাকে এলাকাবাসী ঘটনাটি সম্পর্কে অবগত করেছে। তারা থানায় এসে অভিযোগ করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

একই রকম খবর